| ঢাকা, শুক্রবার, ১২ আগস্ট ২০২২, ২৭ শ্রাবণ ১৪২৯

বুবলীর মুখোমুখি মিথিলা

২০২২ জুন ১৬ ১৯:৫৯:২০
বুবলীর মুখোমুখি মিথিলা

'দুজনে মুখোমুখি গভীর দুখে দুখি/ আকাশে জল ঝরে অনিবার-/ জগতে কেহ যেন নাহি আর।/ সমাজ সংসার মিছে সব,/মিছে এ জীবনের কলরব।' বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের এই কবিতার লাইনের মতো চিত্রনায়িকা শবনম বুবলী ও অভিনেত্রী মিথিলা দু'জনে মুখোমুখি হয়েছেন। বাস্তবে নয়, সিনেমার

পর্দায়। আগামীকাল সারাদেশে মুক্তি পাচ্ছে এই দুই অভিনেত্রীর দুই সিনেমা। সিনেমার নায়িকা হিসেবে বুবলীর যাত্রা শুরু ২০১৬ সালে। অন্যদিকে বড় পর্দায় মিথিলার যাত্রা মাত্র শুরু হলেও ছোট পর্দায় পরিচিত তিনি। তবে মিথিলার বড় পর্দায় যাত্রা হচ্ছে দারুণভাবে।

কারণ, বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গের ছবিতে আগেও অনেকেই অভিনয় করেছেন। এখনও অনেকেই করেন। কিন্তু অভিনেত্রী রাফিয়াত রশিদ মিথিলা এবার এক নতুন রেকর্ড গড়লেন। আগামীকাল একই সঙ্গে দুই বাংলায় মুক্তি পাচ্ছে তাঁর দুটি সিনেমা। বাংলাদেশে 'অমানুষ' ও পশ্চিমবঙ্গে 'আয় খুকু আয়'। বিষয়টি নিয়ে রোমাঞ্চিত মিথিলা। নায়ক নিরবের বিপরীতে মিথিলার প্রথম ছবি অমানুষ। বাস্তব ঘটনা অবলম্বনে ছবিটি পরিচালনা করেছেন অনন্য মামুন। এই ছবিতে নিরব-মিথিলা ছাড়াও অভিনয় করেছেন কাজী নওশাবা আহমেদ, মিশা সওদাগর, শহিদুজ্জামান সেলিম প্রমুখ। মিথিলা বলেন, 'নগর জীবনের বাইরের গল্প। আশা করি, দর্শক নতুন এক গল্পের স্বাদ পাবেন। ছবিটির পুরো চিত্রায়ণ হয়েছে জঙ্গলে।

শৌভিক কুণ্ডুর পরিচালনায় আয় খুকু আয় ছবিতে মিথিলা অভিনয় করেছেন প্রসেনজিতের স্ত্রীর ভূমিকায়। একটি গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র, প্রসেনজিতের মেয়ের ভূমিকায় রয়েছেন দিতিপ্রিয়া রায়। গ্রামের এক বাবা-মেয়ের গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে ছবিটি। একই দিনে দুই বাংলায় একসঙ্গে দুটি ছবি মুক্তি পাওয়ার ঘটনায় বেশ খুশি মিথিলা। দর্শকের কেমন লাগবে ছবি দুটি? এরই অপেক্ষায় প্রহর গুনছেন অভিনেত্রী।

একই দিনে দুই দেশে ছবি মুক্তির রেকর্ডও গড়েছেন এই অভিনেত্রী। একই দিনে দুই বাংলায় 'জোড়া অভিষেক' প্রসঙ্গে মিথিলা বলেন, 'এই প্রথম বাণিজ্যিক ছবিতে দর্শকরা আমাকে দেখবেন। জানি না, কীভাবে নেবেন তাঁরা। অমানুষ ভিন্নরকম গল্পের ছবি। কাজের সময় সেই ভিন্নতার আনন্দ পেয়েছি। ছবিটি নিয়ে আমি অনেক একসাইটেড। পাশাপাশি একই দিনে পশ্চিমবঙ্গের দর্শকরাও আমাকে বড় পর্দায় দেখবেন। যদিও সেই ছবিতে আমি প্রধান চরিত্রে অভিনয় করিনি। ছোট একটি চরিত্রে কাজ করেছি। বলা যায় অতিথি চরিত্র। এই চরিত্রে অভিনয় করেছি একমাত্র বুম্বাদার [প্রসেনজিৎ] জন্য।' বাংলাদেশ মিথিলাকে পরিচিতি দিয়েছে। তাইতো দেশের ছবির প্রতি তাঁর আগ্রহ বেশ। নিজের অভিনীত প্রথম সিনেমা মুক্তির দিন দেশে থাকতে না পেরে মন খারাপ তাঁর। কারণ মিথিলা এখন তাঁর অফিসের কাজে রয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার তানজানিয়ায়। সেখান থেকে মিথিলা সমকালকে জানিয়েছেন তাঁর মন খারাপের কথা।

তিনি বলেন, 'খুবই খারাপ লাগছে। আমার প্রথম বাণিজ্যিক ছবি মুক্তি পাচ্ছে, অথচ আমি হলে গিয়ে দর্শকদের সঙ্গে ছবিটি দেখতে পারছি না। দর্শকের অ্যাকশন আর রি-অ্যাকশন কী, তা জানতে পারব না ভেবে মন খারাপ। কিন্তু কী আর করা, যখন আমি দেশ থেকে ছুটি কাটিয়ে তানজানিয়া এলাম, তখনই এই ছবি দুটি মুক্তির দিনক্ষণ চূড়ান্ত হলো। খুব ইচ্ছা ছিল ছবি মুক্তির সময়ে থাকার। তবে দর্শকদের প্রতি আমার আস্থা আছে। তাঁরা ছবি দুটি দেখবেন এবং হতাশ হবেন না।' অন্যদিকে ঢাকার সিনেমার এই সময়ের সবচেয়ে ব্যস্ত অভিনেত্রী শবনম বুবলী। জনপ্রিয় নায়িকাও তিনি।

চলনবলন ও অভিনয়ে তাঁর জনপ্রিয়তা দিনকে দিন বাড়ছে। এরই মধ্যে মুক্তি পেয়েছে তাঁর অভিনীত ১৩ সিনেমা। আগামীকাল মুক্তি পাচ্ছে 'তালাশ'। সৈকত নাসির পরিচালিত এই সিনেমায় বুবলীর বিপরীতে রয়েছেন নবাগত আদর আজাদ। বুবলী বলেন, 'যাঁরা জীবনে ভালোবেসে ব্যর্থ বা সফল হয়েছেন তাঁদের জন্য এই তালাশ। এ ছাড়া যাঁরা সংগীত ভালোবাসেন তাঁদের কাছে ছবিটি খুব ভালো লাগবে। আমরা অনেকে ভালোবেসে কাজটি করেছি। আশা করছি দর্শকের কাছে ভালো লাগবে।'

বুবলীর শুরুটা শাকিব খানের হাত ধরে হলেও এখন শাকিবের বাইরেও অন্য নায়কদের সঙ্গে অভিনয় করছেন।

নতুন সহশিল্পীদের সঙ্গে কাজের ব্যাপারে বুবলী বলেন, 'বিভিন্ন ছবিতে বিভিন্ন অভিনেতার বিপরীতে কাজ করতে দারুণ দারুণ অভিজ্ঞতা হচ্ছে। সবচেয়ে বড় কথা, এভাবে কাজ করতে গিয়ে অনেক কিছুই শিখতে পারছি। নিজেকে ভিন্নভাবে প্রকাশের সুযোগ পাচ্ছি। এটা আমার জন্য অনেক আনন্দের।'

পাঠকের মতামত:

বিনোদন এর সর্বশেষ খবর

বিনোদন - এর সব খবর



রে