ঢাকা, বুধবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৭ ফাল্গুন ১৪২৬

সারা-কার্তিকের ট্রেলার নিয়ে ট্রল

২০২০ জানুয়ারি ২১ ২১:৩৫:৩০
সারা-কার্তিকের ট্রেলার নিয়ে ট্রল

তিন দিনে সারা আলী খান আর কার্তিক আরিয়ান অভিনীত ‘লাভ আজকাল’ (২০২০) ছবির ট্রেলার দেখা হয়েছে আড়াই কোটির বেশিবার। কিন্তু তাতে কিছু আসে-যায় না। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ভেসে যাচ্ছে এই ট্রেলার নিয়ে ব্যঙ্গাত্মক মিম আর ট্রলে। ‘ওভার

অ্যাক্টিংয়ের দোকান’, ‘এর চেয়ে ফালতু ট্রেলার হতেই পারে না’, ‘আমার দেখা সবচেয়ে বাজে ট্রেলার’, ‘আবেগের ছিটেফোঁটা নেই’—এসব মন্তব্যের সঙ্গে জুড়ে দেওয়া হচ্ছে ‘হ্যাশট্যাগ লাভ আজকাল’। ফিল্মি বিটের প্রতিবেদন অনুসারে, এই ট্রেলারে সারা আর কার্তিকের অতি অভিনয় ও নির্বোধ ডায়ালগ বিরক্ত হয়েছে দর্শক। হাসির খোরাক হয়ে দাঁড়িয়েছে রাতারাতি। সারা আলী খানের বাবা সাইফ আলী খান তো আগেই জানিয়েছেন, এই ট্রেলার পছন্দ হয়নি তাঁর। অবশ্য সরাসরি বলেননি। বলেছেন, ‘আমার করা “লাভ আজকাল”-এর ট্রেলার এর চেয়ে ঢের ভালো ছিল।’ ‘কেদারনাথ’ আর ‘সিম্বা’তে অভিনয় করে সারা আলী খান প্রচুর ভালোবাসা পেয়েছিলেন।

তৃতীয় ছবির ট্রেলার দেখেই ভক্তরা তার চেয়ে বেশি সমালোচনা করেছেন। ট্রেলারে একটা সংলাপ আছে, সেখানে সারা আলী খান কার্তিককে বলেন, ‘ইদানীং তুমি আমাকে বিরক্ত করছ।’ এই বাক্যকে মিম বানিয়ে টুইটারে একদল ক্যাপশনে লিখছেন, ‘যখন ইমতিয়াজ আলীর প্রতিটি ছবিতে একই বিরক্তকর প্রেমকাহিনি দেখায়।’ সারাকে কার্তিক বলেন, ‘হয় তুমি পুরোপুরি আসো, নাহলে এসোই না।’ এই ডায়ালগকে মিম বানিয়ে ক্যাপশনে লেখা হয়েছেন, ‘যখন কাঁটাচামচে অনেক চেষ্টার পর একটা-দুটো নুডলস আসে বা যখন আপনার স্যালারি ৫০ হাজার,

কিন্তু আপনি হাতে পান ২০ হাজার।’ সবচেয়ে বেশি ট্রল হয়েছে সারার অভিব্যক্তি আর ডায়ালগ। ওই ছবিকে বলা হচ্ছে জানুয়ারি মাসের ‘ট্রলপিক’। একজন লিখেছেন, ‘প্রথমে ভাবলাম কোনো কমেডি দৃশ্য। পরে দেখি সিরিয়াস দুঃখের দৃশ্য। হাসব না কাঁদব বুঝলাম না। বিরক্তিকর।’ একজন লিখেছেন, ‘এর চেয়ে বাজে ট্রেলার সম্পাদনা হতেই পারে না।’ আরেক টুইটার ব্যবহারকারী লিখেছেন, ‘এই ট্রেলারের একমাত্র ভালো দিক রণদীপ হুদা।’ যদিও রণদীপ হুদাকে দেখা গেছে এক সেকেন্ডেরও কম সময়, তাও সারার পেছনে আবছা অবয়বরূপে।

অবশ্য এ রকম লিখেছেন কয়েকজন যে সারা আর কার্তিকের পর্দার প্রেম মনে হচ্ছে অভিনয় নয়, সত্যি। কিছু মানুষ এই প্রেম পছন্দও করেছেন। এই জুটির নাম দিয়েছেন ‘সার্তিক’। যদিও সমালোচকদের মতে এই হাসি-তামাশা, মিমে শেষমেশ লাভই হচ্ছে ছবিটির। থাকছে প্রচারে। আর বর্তমানে তো নেতিবাচক প্রচারণাই বড় প্রচারণা। সেই জন্যই ইউটিউবে ট্রেন্ডিং লিস্টে প্রথমেই দেখা যাচ্ছে এই ছবির ট্রেলার।


বলিউড এর সর্বশেষ খবর

বলিউড - এর সব খবর