ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৬ আগস্ট ২০২০, ২২ শ্রাবণ ১৪২৭

মাশরাফির হস্তক্ষেপে বিরাট সুখবর পেলেন বয়স্ক, বিধবা ও অসচ্ছল প্রতিবন্ধীরা

২০১৯ ডিসেম্বর ১৫ ১৯:২৩:১০
মাশরাফির হস্তক্ষেপে বিরাট সুখবর পেলেন বয়স্ক, বিধবা ও অসচ্ছল প্রতিবন্ধীরা

নড়াইল-২ আসন থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য মাশরাফি বিন মর্তুজার হস্তক্ষেপে নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির আওতায় বয়স্ক, বিধবা ও অসচ্ছল প্রতিবন্ধীদের ভাতার অব্যয়িত ৬ লাখ ৭৪ হাজার ১৪ টাকা অবশেষে ফেরত পাচ্ছেন ভাতাভোগীরা।

এর আগে গত ৩১ জুলাই এই টাকা বিতরণের সময়সীমা পার হয়ে যাওয়ায় অব্যয়িত অর্থ কেন্দ্রীয় ব্যাংক হিসাবে ফেরত নিতে ভাতা বিতরণকারী সংশ্লিষ্ট ব্যাংকগুলোকে চিঠি পাঠায় সমাজসেবা অধিদফতর। মাঠপর্যায়ে ভাতা বিতরণের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট ব্যাংক শাখায় নির্ধারিত সময়ের পূর্বে স্থানীয় উপজেলা সমাজসেবা কার্যালয় থেকে উপকারভোগীদের তালিকা না পাঠানোর কারণে ওই টাকা ফেরতের নির্দেশ আসে।

বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংক লোহাগড়া শাখা সূত্রে জানা গেছে, ২০১৮-২০১৯ অর্থবছরে বয়স্ক ভাতার হিসাবে অব্যয়িত অর্থের পরিমাণ ২ লাখ ৭৭ হাজার ৫০০ টাকা, বিধবা ভাতার হিসাবে ২ লাখ ১০ হাজার ও প্রতিবন্ধী ভাতার হিসাবে ১ লাখ ১১ হাজার ৩০০ টাকা এবং ২০১৭-২০১৮ অর্থবছরের বয়স্ক ভাতার হিসাবে ৩৭ হাজার ৬০০ টাকা, বিধবা ভাতার হিসাবে ৩৭ হাজার ৬১৪ টাকা, প্রতিবন্ধী ভাতার হিসাবে ২৩ হাজার ৩০০ টাকা অব্যয়িত রয়েছে।

ভুক্তভোগীদের অভিযোগ, লোহাগড়া উপজেলা সমাজসেবা কার্যালয় থেকে উপকারভোগীদের তালিকা সঠিক সময়ে ব্যাংক শাখায় জমা না দেয়ায় ব্যাংক কর্তৃপক্ষ ভাতাভোগীদের ব্যক্তিগত হিসাবে টাকা জমা দিতে পারেনি। বিধায় নির্ধারিত সময়ে টাকা বিতরণ করা সম্ভব হয়নি। যে কারণে সমাজসেবা কার্যালয়ের গাফিলতিতেই তাদের টাকা ফেরতের নির্দেশ আসে।

গত ৪ আগস্ট ভাতার সমস্ত অব্যয়িত অর্থ সংশ্লিষ্ট ব্যাংকের কেন্দ্রীয় হিসাবে ফেরত নিতে সমাজসেবা অধিদফতর থেকে মহাপরিচালক গাজী মোহাম্মদ নূরুল কবীর স্বাক্ষরিত একটি পত্র প্রেরণ করা হয় কৃষি ব্যাংকের প্রধান নির্বাহী বরাবর। ওই চিঠির একটি অনুলিপি গত ৮ আগস্ট মাঠপর্যায়ে ভাতা বিতরণের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কৃষি ব্যাংকের লোহাগড়া শাখায় পাঠানো হয়। সেই পত্র মোতাবেক অব্যয়িত অর্থ ফেরত দেয়া ছাড়া বিতরণের আর কোনো সুযোগ ছিল না।

এমন পরিস্থিতিতে ভূক্তভোগীরা মাশরাফির দ্বারস্থ হলে মানবিক কারণে এমপির ডিও (ডিমান্ড অব অর্ডার) লেটারে ভাতাভোগীদের অব্যয়িত অর্থ প্রদানের অনুরোধ করেন।

গত ১৪ নভেম্বর বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংক লোহাগড়া শাখার ব্যবস্থাপক বরাবর এমপি মাশরাফির ডিও লেটারে বলা হয়েছে, অসহায়-দুস্থ মানুষের প্রাপ্য ভাতার টাকা নিয়ে সৃষ্ট আইনি জটিলতা নিরসন করে মানবিক দৃষ্টিকোণ থেকে বিবেচনা করে ফেরতযোগ্য ভাতার টাকা পরিশোধ করতে অনুরোধ করা হয়। এরই প্রেক্ষিতে, সর্বমোট অব্যয়িত ৬ লাখ ৭৪ হাজার ১৪ টাকা পর্যায়ক্রমে বিতরণ করছে ওই ব্যাংক শাখাটি।

এ প্রসঙ্গে বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংকের লোহাগড়া শাখার ব্যবস্থাপক মামুন অর রশীদ বলেন, ‘আমি অতিসম্প্রতি এখানে বদলি হয়ে যোগদান করে জানতে পারলাম লোহাগড়া উপজেলা সমাজসেবা কার্যালয় থেকে একটি বড় অংশের ভাতাভোগীদের তালিকা সময় মতো দেয়া হয়নি। যে কারণে গত ৩১ জুলাই ওই টাকা বিতরণের সময় পার হয়ে যাওয়ায় তাদের অব্যয়িত টাকা মাদার অ্যাকাউন্টে জমা রাখা হয়। এ ছাড়া গত অর্থবছরের বেশকিছু টাকাও অব্যয়িত রয়েছে। ওই সমস্ত টাকা ভাতাভোগীদের মধ্যে ফেরত দিতে এমপি মাশরাফি একটি ডিও লেটার পাঠিয়েছেন।

তিনি বলেন, এমপির প্রতি সম্মান দেখিয়ে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে ফেরতযোগ্য অর্থ বিতরণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। সেই অনুযায়ী পর্যায়ক্রমে ভাতাভোগীদের টাকা বিতরণ করা হচ্ছে। বলা যায়, এমপি মাশরাফির কল্যাণেই এই অর্থ ফেরত পাচ্ছেন ভুক্তভোগীরা।

একই প্রসঙ্গে লোহাগড়া উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মো.শামীম রেজা বলেন, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির আওতায় বয়স্ক, বিধবা ও অসচ্ছল প্রতিবন্ধীদের ভাতার অব্যয়িত ৬ লাখ ৭৪ হাজার ১৪ টাকা অবশেষে নড়াইল-২ আসনের সংসদ সদস্য মাশরাফি বিন মর্তুজার হস্তক্ষেপে ফেরত পাচ্ছেন ভাতাভোগীরা।


জাতীয় এর সর্বশেষ খবর

জাতীয় - এর সব খবর