ঢাকা, শুক্রবার, ১৪ আগস্ট ২০২০, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭

‘বার্সেলোনার ড্রেসিং রুমে বর্ণবাদের শিকার হয়েছি’

২০১৯ ডিসেম্বর ০৫ ১৬:০০:১৮
‘বার্সেলোনার ড্রেসিং রুমে বর্ণবাদের শিকার হয়েছি’

স্পোর্টস ডেস্ক ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনা, নি:সন্দেহে ফুটবল ইতিহাসের অন্যতম সেরা। বিশ্বের শতকোটি সমর্থকরা বিশ্বের নানান প্রান্ত থেকে তাদের সমর্থন জানায়। হতে পারে তাদের শরীরের রং সাদা কিংবা বাদামি অথবা কালো। তবে সবাইই সমর্থন জানান প্রিয় ক্লাবটিকে। আর সেই ক্লাবের ড্রেসিং রুমের

দিকেই বর্ণবাদী আচরণের আঙুল তুলেছে বার্সেলোনারই সাবেক এক ফুটবলার। বিজ্ঞাপন আর্সেনাল ছেড়ে ২০০০ সালে বার্সেলোনায় নাম লেখা ফ্রেঞ্চ মিড ফিল্ডার এমানুয়েল পেতিত। সাবেক এই ফ্রেঞ্চ মিড ফিল্ডার নিজের সাবেক ক্লাব বার্সেলোনার ড্রেসিং রুমের দিকেই বর্ণবাদ আচরণের আঙুল তুলেছেন। সম্প্রতি আরএমসিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে পেতিত বলেন, ‘আমি বার্সেলোনার ড্রেসিং রুমে বর্ণবাদের শিকার হয়েছি। এটা শুনে হয়তো অনেক বিস্ময়কর মনে হতে পারে তবে আমি এটার শিকার হয়েছি। এটা কেবল একবার হয়ে থেমে যায়নি। আমি প্রতিনিয়ত এটার সম্মুখীন হয়েছি।‘

ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনা নিজেদের দাবী করেন ‘মোর দ্যান অ্যা ক্লাব’ অর্থাৎ একটি ক্লাবের থেকেও বেশি কিছু। যেখানে পুরো ফুটবল বিশ্ব বর্ণবাদী আচরণের বিপক্ষে এক অলিখিত যুদ্ধে জড়িয়েছে, ঠিক সেখানেই বার্সেলোনার মতো একটি ক্লাবের ড্রেসিং রুমে সতীর্থদের কাছেই বর্ণবাদের শিকার হয়েছেন আর এক সতীর্থ। বিজ্ঞাপন কেবল এটাই নয়, ২০১৫ সালের দিকে পেতিত জানান সে সময় বার্সেলোনার ড্রেসিং রুমে ফুটবলারদের দুই গ্রুপের মধ্যেও বেশ ঝামেলা চলছিল। সেখানে কাতালান এবং নেদ্যারল্যান্ডসের ফুটবলারদের মধ্যে দ্বন্দ্ব চলছিল।

এ সম্পর্কে পেতিত বলেন, ‘আসলে আমি এমন একটা সময়ে বার্সেলোনায় এসেছিলাম যখন কাতালান এবং ডাচ ফুটবলারদের মধ্যে এক প্রকার যুদ্ধ চলছিল।‘ বার্সেলোনার সঙ্গে স্পেনের দ্বন্দ্বের বিষয়টা নতুন কিছু নয়। এই দ্বন্দ্ব চলে আসছে বছরের পর বছর ধরে। বার্সেলোনার খেলোয়াড়দের মধ্যে স্পেন বিদ্বেষী মনোভাব লক্ষ করেন পেতিত। তিনি জানান, ‘আমি যখন বার্সেলোনায় পৌঁছেছি তখন তারা আমাকে স্প্যানিশ নয় কাতালান ভাষা শিখতে বলেছিল।

কিন্তু আমি তাদের জানিয়েছিলাম আমি স্পেনে এসেছি তাই স্প্যানিশই তো শিখতে হবে। জবাবে তারা জানায় “তুমি স্পেনে নয়; কাতালানে এসেছ।“ এ সকল বিষয় নিয়ে আমি বেশ হতাশার মধ্যে পড়েছিলাম সে সময়ে।‘ এক মৌসুম পরেই বার্সেলোনা ছেড়ে চেলসিতে পাড়ি জমান এই মিড ফিল্ডার। কাতালানদের জার্সি গায়ে ওই মৌসুমে ২৩ ম্যাচ খেলে ১ গোল করেন পেতিত। আর পরের বছরেই চেলসিতে নাম লেখান এই ফ্রেঞ্চ মিড ফিল্ডার


খেলাধুলা এর সর্বশেষ খবর

খেলাধুলা - এর সব খবর