ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৯, ৩ কার্তিক ১৪২৬

দেশজুরে প্রশংসায় ভাসছে ‘আব্বাস’

২০১৯ জুলাই ১৬ ২০:৪৯:১৯
দেশজুরে প্রশংসায় ভাসছে ‘আব্বাস’

ঢাকাই সিনেমার ক্ষেত্রে অধিকাংশ সময়ই উৎসব পার্বনে মুক্তি পাওয়া সিনেমা ছাড়া অন্য কোনো সিনেমা আলোচনায় আসতে দেখা যায় না। অনেক দিন পরেই এর ব্যাতিক্রম ঘটলো সাইফ চন্দন পরিচালিত ‘আব্বাস’ সিনেমাটির ক্ষেত্রে। মুক্তির আগেই ছবিটির ট্রেলার ও গান ছবিটির প্রতি দর্শকের আগ্রহ তৈরি করতে সক্ষম হয়েছিলো।

বিশেষ করে ছবিটিতে পুরান ঢাকার আঞ্চলিক ভাষার ব্যাবহার ও নিরবের লুক আগ্রহী করে দর্শকদের। গেলো ৫ জুলাই সারাদেশে মুক্তি পাওয়া ‘আব্বাস’ দ্বিতীয় সপ্তাহেও বেশ কিছু সিনেমা হলে চলছে। নিরব আব্বাস রূপে হাজির হয়ে দর্শকের মন জয় করতে সক্ষম হয়েছেন। তার বাস্তব প্রমাণ হলো এখন নিরবকে ‘আব্বাস’ নামে ডাকছেন অনেকেই। ‘এই শহরে আব্বাস ২০ বছর ঘুমাই না’ ছবির সংলাপটিও এখন ঘুরছে মানুষের মুখে মুখে। একথা বলার অপেক্ষা রাখে না ছবিটি নিরবের ক্যারিয়ারে নতুন পালক যোগ করলো।

ছবিটির সাফল্যে বেশ উচ্ছ্বসিত নিরব। তিনি বলেন, ‘সব সময় নিজেকে নতুন ভাবে দর্শকের সামনে উপস্থাপন করতে ভালো লাগে। নতুন কিছু দর্শক গ্রহণ করলে আরও ভালো লাগে। ‘আব্বাস’ ছবিটির সাফল্য আমাকে অনেক অনুপ্রাণিত করেছে। প্রচুর ভালোবাসা পেয়েছি ছবিটির জন্য। এখনো পাচ্ছি। আমি মনে করি, ছবিটির সাফল্য আসলে ঢাকাই সিনেমার সাফল্য। আব্বাসের জয় হয়েছে, দর্শকদের হলে টানতে পেরেছে ছবিটি এটাই বড় ব্যপার।’

নিরব আরও বলেন, ‘আব্বাসের মতো একটি চরিত্রে অভিনয় করা আমার জন্য বড় একটা চ্যালেঞ্জিং ছিলো। অনেক কষ্ট করেছিলাম ছবিটির জন্য, সেই কষ্ট করা সার্থক হয়েছে। নির্মাতা সাইফ চন্দন ভালো একটি গল্প বাছাই করেছিলেন, নির্মাণেও মুন্সিয়ানা দেখাতে সক্ষম হয়েছেন। ভালো সিনেমা দর্শক যে গ্রহণ করেন আব্বাস সিনেমা তা আবারও প্রমাণ করেছে।’

ছবিটিতে নিরবের বিপরীতে অভিনয় করেছেন সোহানা সাবা। আরও অভিনয় করেছেন আলেকজান্ডার বো, সূচনা আজাদ, জয়রাজ, ডন, শিমুল খান, স্বাধীন ও ইলোরা গহর প্রমুখ। এটি প্রযোজনা করেছে ঢাকা ফিল্মস অ্যান্ড এন্টারটেইনমেন্ট।


ঢালিউড এর সর্বশেষ খবর

ঢালিউড - এর সব খবর