ঢাকা, সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০, ১১ কার্তিক ১৪২৭

আইপিএলে বিনাশী হবেন জাহানারা

২০২০ অক্টোবর ১৪ ১৭:০১:০১
আইপিএলে বিনাশী হবেন জাহানারা

গত আসরের আইপিএলে করা ভুলগুলো নিয়ে এখনো আফসোস হয় জাহানারা আলমের। কেবলই ভাবেন-যদি আরেকটু ভাল খেলতাম, ফাইনাল ম্যাচে চার নম্বর ‍ওভারটায় আরেকটু টাইট বোলিং করতে পারতাম, একটা ব্রেক থ্রু আসত, তাহলে হয়ত রানার-আপ না হয়ে চ্যাম্পিয়নই হতাম।

তাতে অবশ্য তিনি মুর্ছা যান না মোটেই। বরং আরো প্রত্যয়ী হয়ে ওঠেন, যাতে লেপ্টে থাকে ধ্বংস বাঁশির সুর। যে সুর তাকে এই আসরে বিনাশী হয়ে ওঠার জ্বালানি যুগিয়ে যায় ক্রমাগত।

মেয়েদের আইপিএলের গত আসরে দুটি ম্যাচ খেলার সুযোগ হয়েছিল জাহানারার। ভেলোসিটির জার্সি গায়ে প্রথম ম্যাচে ৪ ওভারে ৩৪ রান দিয়ে ছিলেন উইকেটশূন্য। তবে ফাইনালে ঠিকই জ্বলে উঠেছিলেন। ৪ ওভারে মাত্র ২১ রানের বিনিময়ে তুলে নিয়েছিলেন ২ উইকেট। যদিও তাতে কাজের কাজ কিছুই হয়নি। জয়ের মুখ দেখেনি তার দল। রানার-আপ হয়েই তুষ্ট থাকতে হয়েছে তার দলকে।

সেই ক্ষত আজও তার মনে দগদগে। আর তাতে প্রলেপ দিতে এবারের আসরে বল হাতে বিনাশী হওয়ার কোন ব্যতিক্রমই দেখছেন না দেশসেরা এই প্রমীলা পেসার। সেই বিনাশে যত্রতত্র উপ্রে যাবে ব্যাটম্যানের স্ট্যাম্প, উড়ে যাবে বেলস।

একান্তে আলাপকালে এমন দৃপ্ত মনোভাবের কথাই জানালেন টানা দুইবার টি-টোয়েন্টি চ্যালেঞ্জ লিগ বা মেয়েদের আইপিএলে বাংলাদেশ থেকে ডাক পাওয়া একমাত্র প্রমীলা এই ফাস্ট বোলার।

‘নির্দিষ্ট কোন লক্ষ্য আসলে নেই। যেটা আমি সবসময় চিন্তা করি ওই একই পরিকল্পনায় এগোব, পারফর্মেন্স করব দলের জন্য। যেমন গতবারের ফাইনালে যদি আরেকটু ভাল খেলতাম চার নম্বরে ওভারটা যদি আরেকটু ভালো করতাম, একটা ব্রেক থ্রু আসতো তাহলে হয়তো আমরা চ্যাম্পিয়ন হতে পারতাম। ঐরকম একটা চিন্তা মাথায় আসে যে, আরো কতটা ভাল পারফর্ম করা যায় পরিস্থিতির উপর ভিত্তি করে, পারফরম্যান্স করে টিমকে যতটা এগিয়ে দেওয়া যায় ওই লক্ষ্য আসলে আছে।’ বলছিলেন জাহানারা।

একমাত্র বাংলাদেশী হিসেবে একই দলে ব্যাক টু ব্যাক আইপিএল খেলছেন। এটা আপনার ক্যারিয়ারে কতটা ইতিবাচক প্রভাব ফেলবে? প্রতিবেদকের করা এমন প্রশ্নে সহাস্যে জাহানারা জানালেন, ‘আমি তো খুবই খুশি আবারো আমি একই দলে আইপিএল খেলতে যাচ্ছি। আর ক্যারিয়ারের জন্য অবশ্যই এটা বড় প্রভাব ফেলবে। কারণ আইপিএল টাইপের এই ধরনের প্লাটফর্মে সাধারণত সবার খেলার সুযোগ হয় না। এই সুযোগটা আমি আবারো পেয়েছি। আর গতবারের অভিজ্ঞতা যেটা ছিল সেটাকে কাজে লাগিয়ে এবার চেষ্টা করব যেন গতবারের থেকে আরো ভালো খেলতে পারি।’

‘বর্তমান সময়টা যে পরিস্থিতিতে যাচ্ছে করোনার কারণে ক্রিকেট মাঠে গড়াচ্ছে ঠিক আছে, আর এর মধ্য থেকে এখনো আমাদের ঘরোয়া ক্রিকেট সেভাবে ফেরেনি। সেখানে আমি যে বাংলাদেশী হিসেবে যাচ্ছি খেলতে, পূর্ণাঙ্গভাবে ক্রিকেট ম্যাচ খেলার সুযোগ সেখানে হবে। এটার জন্য আমি একটু বেশি আনন্দিত যে আমি খেলা শুরু করতে পারছি, এই পরিস্থিতিতে।’ তিনি যোগ করেন।

সব ঠিক থাকলে আইপিএলে খেলতে চলতি মাসের ২১ তারিখে সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিমান ধরবেন জাহানারা। সঙ্গে থাকছেন আরেক ক্রিকেটার সালমা খাতুন। সালমা খেলবেন সুপারনোভাস ট্রেইলব্লেজার্সের হয়ে। তার আগে দুই দফায় যেতে হবে করোনা পরীক্ষার মধ্য দিয়ে। এর প্রথমটি আজই অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রথম পরীক্ষা শেষে আগামী এক সপ্তাহ দুজনকে ঘরেই বসেই কাটাতে হবে। আর দ্বিতীয়টি ফ্লাইটের ৭২ ঘণ্টা আগে অর্থাৎ ১৯ অক্টোবর।


খেলাধুলা এর সর্বশেষ খবর

খেলাধুলা - এর সব খবর