ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১ অক্টোবর ২০২০, ১৫ আশ্বিন ১৪২৭

আইপিএলে শুরু হয়েছে সাইফুদ্দিনকে নিয়ে কাড়াকাড়ি

২০২০ আগস্ট ০৯ ২২:৪৯:১৭
আইপিএলে শুরু হয়েছে সাইফুদ্দিনকে নিয়ে কাড়াকাড়ি

করোনা ভাইরাসের মধ্যেই শুরু হতে যাচ্ছে এবারের ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ আইপিএল। এবারের আইপিএলের ১৩তম আসর হতে যাচ্ছে আগামী সেপ্টেম্বরে।

সংযুক্ত আরব আমিরাতে শুরু হতে যাচ্ছে এবারের লীগ। আইপিএলের প্রথম আসর থেকেই প্রায় প্রত্যেক আসরেও খেলেছেন কোন না কোন বাংলাদেশী ক্রিকেটার। তবে এবারের আসরে বাংলাদেশী কোন প্রতিনিধি থাকছেনা। যদিও এই আসরেও খেলার কথা ছিল এক বাংলাদেশী ক্রিকেটারের।

নিষেধাজ্ঞায় থাকাতে এবারের আইপিএলে নাম ছিলোনা সাকিবের। অন্যদিকে মোস্তাফিজ সহ বেশ কিছু ক্রিকেটার নিলামে থাকলেও দলে নিতে আগ্রহ দেখায়নি কোন ফ্র্যাঞ্চাইজি। তবে পেস অলরাউন্ডার মোহাম্মদ সাইফুদ্দীনকে দলে ভেড়াতে রীতিমতো প্রতিযোগিতা ছিল দুই ফ্র্যাঞ্চাইজি চেন্নাই সুপার কিংস ও সানরাইজার্স হায়দরাবাদের।

তবে শেষ পর্যন্ত সেই সময় নিজের ইনজুরির কারণে আইপিএল খেলার স্বপ্ন ছাড়তে হয়েছে এই অলরাউন্ডারকে। সম্প্রতি ক্রিকেট ভিত্তিক অনলাইন নিউজ পোর্টাল বিডিক্রিকটাইমের ফেইসবুক পেজে লাইভে সাইফুদ্দিন জানান আইপিএলে সুযোগ পেতে পেতে হারিয়েছেন তিনি।

চেন্নাইয়ের কম্পিউটার বিশ্লেষক হিসেবে কাজ করা লক্ষ্মী নারায়ণ বিপিএল কাজ করেছিলেন ঢাকা প্লাটুনের কম্পিউটার বিশ্লেষক হিসেবে।তিনিই চেন্নাই সুপার কিংসের আলোচনায় নিয়েছিলেন সাইফুদ্দিনের নাম। শুধু চেন্নাই না, সাইফকে দলে ভেড়াতে আগ্রহী ছিলো হায়দ্রাবাদের মেন্টর ভিভিএস লক্ষ্মণও।

সাইফুদ্দিন বলেন, ‘আইপিএলে খেলা তো স্বপ্ন- বলাই যায়। লর্ডসে শেষ ম্যাচ (পাকিস্তানের বিপক্ষে ২০১৯ বিশ্বকাপে) খেলি তখন ভিভিএস লক্ষণ এসেছিলেন আমার ব্যাপারে কিছু জিজ্ঞেস করার জন্য। আমাদের (বাংলাদেশ জাতীয় দল) কম্পিউটার বিশ্লেষণ তো ভারতীয়- শ্রীনিবাস চন্দ্রশেখরন। সানরাজার্স হায়দরাবাদে কাজ করে। শ্রীনিবাসের কাছে লক্ষণ জানতে চেয়েছিলেন ও (সাইফউদ্দিন) কেমন হবে। সাজানো সবকিছুকে নষ্ট করে দিয়েছে আমার ইনজুরি।’

লক্ষী নারায়ন চেন্নাই অধিনায়ক ধোনির কাছে সাইফুদ্দিনের বোলিং ভিডিও পাঠিয়েছিলেন। এ নিয়ে সাইফুদ্দিন বলেন, ‘প্রায় একটা সুযোগ সৃষ্টি হয়ে যেত। শুনছিলাম আমাকে নিয়ে চেন্নাই আলোচনা করছিল। লক্ষ্মী আমাদের (ঢাকা প্লাটুন) ভিডিও বিশ্লেষক ছিল। ও আমাকে বলেছিল ধোনি তোমার ব্যাপারে কথা বলেছে।

আমি বলেছি, তোমরা সবকিছু করো, শুধু আমাদের বাংলাদেশি খেলোয়াড়দের ক্ষেত্রে অ্যালার্জি। সে বলল, দেখো দেখো, আমি মিথ্যা বলছি না। আমি বলেছিলাম, এসব দিয়ে লাভ নেই। আমাদের বড় ভাই-ভাই, কিন্তু আমাদের পেছন দিয়ে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেওয়ার মতও হয়।

পরে বলল, তোর ব্যাপারে যে ধোনির সাথে কথা বলেছি এই দেখ, বোলিং ভিডিও পাঠিয়েছি, তুই তো আমাকে বিশ্বাস করলি না। পরে দেখলাম ধোনি আমার বোলিং ভিডিও দেখে বলেছে, ঠিক আছে। ওদের পরিকল্পনা ছিল আমাকে নেওয়ার। কিন্তু চোটের কারণে যেহেতু খেলার বাইরে ছিলাম, তাই আর পরে আগ্রহ দেখায়নি। এরপর জশ হ্যাজলউডকে ডাকে।’

গেলবারের বিপিএলেও ইঞ্জুরির কারণে খেলা হয়নি। ইনজুরির কারণে সাইফুদ্দিন যেতে পারেননি ভারত সফরেও। সেই ইনজুরিই সাইফুদ্দিনকে পিছনে ফেলে দিয়েছে তার স্বপ্ন আইপিএল খেলা থেকে। আক্ষেপ নিয়ে সাইফুদ্দিন বলেন, ‘আসলে আমার ভাগ্যটা এমনই। বয়সভিত্তিক থেকেই। কখনো প্রথমবারেই আমি সফল হইনি। এটা আমার জন্য অনেক ভালো। কোনো কিছু তাড়াতাড়ি পেয়ে গেলে এর মূল্যটা বুঝবো না।’


খেলাধুলা এর সর্বশেষ খবর

খেলাধুলা - এর সব খবর