ঢাকা, শনিবার, ৮ আগস্ট ২০২০, ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭

টিকটক নিষিদ্ধ করায় মোদি সরকারের সমালোচনায় নুসরাত

২০২০ জুলাই ০২ ১০:৩৭:৩২
টিকটক নিষিদ্ধ করায় মোদি সরকারের সমালোচনায় নুসরাত

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে খুবই সক্রিয় ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের উত্তর চব্বিশ পরগণার বসিরহাটের এমপি অভিনেত্রী নুসরাত জাহান। প্রায়ই নিজের নতুন রান্নার ভিডিও, ছবি আপলোড করেন। এ ছাড়া তিনি টিকটকেও বেশ জনপ্রিয়। সেখানেও মজার মজার ভিডিও আপ করেছেন। টিকটক অ্যাপে নুসরাতের ফলোয়ার ১৪

লাখেরও বেশি। সোমবার সন্ধ্যায় হঠাৎ করেই ভারত সরকার ৫৯টি চীনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করে। সেই তালিকায় রয়েছে টিকটকও। বর্তমানে চীনের সঙ্গে চাপানউতোর এবং নিরাপত্তার জন্য ভারতের তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণারয় এই অ্যাপগুলো নিষিদ্ধ করেছে।

এ বিষয়ে নুসরাত বলেছেন, নোটবন্দির মতোই এই চীনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করে চমক দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। জাতীয় নিরাপত্তার স্বার্থে হলে পূর্ণ সমর্থন রয়েছে। কিন্তু এখন পর্যন্ত পাওয়া খবর অনুযায়ী বেশ কিছু চীনা সংস্থায় বিনিয়োগ করেছে ভারত সরকার। এ ছাড়া ভারত এতদিন চীনের সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক স্থাপনের কথা বলে এসেছে। তাহলে প্রধানমন্ত্রীর সফর আর কূটনীতির ফল কোথায় গেল?

টিকটক নিষিদ্ধ করার ফলে বেশ কিছু মানুষের পকেটে টান পড়বে তা উল্লেখ করে অভিনেত্রী বলেন, ‘আমি একজন অভিনেত্রী। সবাইকে বিনোদন দেয়া আমার একটা কর্তব্যের মধ্যে পড়ে। টিকটকও আমার কাছে আর পাঁচটা সোশ্যাল প্ল্যাটফর্মের মতোই। কিন্তু যারা এই অ্যাপের মাধ্যমে রোজগার করতেন, তারাও রাতারাতি বেকার হয়ে গেলেন। সরকার তাদের নিয়ে কি কিছু ভেবেছেন? নোটবন্দির (২০১৬ সালের ৮ নভেম্বর নরেন্দ্র মোদির ঘোষণায় পুরনো ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোট বাতিল হওয়াকে মূলত নোটবন্দি বলা হয়) ফলে সমস্যায় পড়েছিলেন সাধারণ মানুষ। এবারও ঠিক তাই হলো।’

তিনি আরও বলেন, কেন্দ্রের আগে থেকেই বিকল্প কিছু পথ ভেবে রাখা উচিত ছিল। এভাবে কিছু অ্যাপ বন্ধ করে কিছুতেই চীনা আগ্রাসন ঠেকানো যাবে না।’

বুধবার ইসকনের রথযাত্রায় এসে মোদি সরকারের এই পদক্ষেপের কড়া সমালোচনা করেন অভিনেত্রী।

My Statement on recent Tik Tok Ban:- pic.twitter.com/fVjL0LAhvm — Nusrat (@nusratchirps) July 1, 2020


বলিউড এর সর্বশেষ খবর

বলিউড - এর সব খবর