ঢাকা, শুক্রবার, ১০ জুলাই ২০২০, ২৬ আষাঢ় ১৪২৭

বিপাশাকে যে কারনে চড় মেরেছিলেন কারিনা

২০২০ জুন ১০ ২১:৩৬:৩৩
বিপাশাকে যে কারনে চড় মেরেছিলেন কারিনা

অক্ষয় কুমারের বিপরীতে ‘আনজাবি’ চলচ্চিত্র দিয়ে বলিউডে অভিষেক হয়েছিল বঙ্গকন্যা বিপাশা বসুর। ছবিতে আরো ছিলেন ববি দেওল ও কারিনা কাপুর। গণমাধ্যমের খবর, ওই ছবির শুটিং সেটে বিপাশা ও কারিনার মধ্যে মনোমালিন্য হয়েছিল। বলিউডের দুই আবেদনময়ীর রেষারেষির গল্প বহু বছর ধরেই

চলচ্চিত্রপাড়ায় ভেসে বেড়াচ্ছে। ওই ঘটনার পর আর কখনো তাঁরা কোনো সিনেমায় একসঙ্গে কাজের ইচ্ছে প্রকাশ করেননি।

ভারতের বিনোদনভিত্তিক সংবাদমাধ্যম বলিউড বাবলের প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

কিন্তু সেসব গল্প তো অনেক পুরোনো। এখন কেন হঠাৎ সেসব আলোচনায় এলো? প্রশ্ন উঠতেই পারে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সম্প্রতি বিপাশা বসুর অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খবর প্রকাশ্যে এলে কারিনার সঙ্গে পুরোনো ঝগড়ার প্রসঙ্গ উঠে আসে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এ নিয়ে চলছে জোর আলোচনা-সমালোচনা। এমনকি কারিনার একমাত্র সন্তান তৈমুরের প্রসঙ্গও উঠে এসেছে লোকমুখে। ধীরে ধীরে সেই আলোচনা গিয়ে পৌঁছেছে ‘আনজাবি’ ছবির শুটিং সেটে দুই অভিনেত্রীর ক্যাটফাইটের গল্প।

ইন্ডিয়া টুডের বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, দুই অভিনেত্রীর মধ্যে দ্বন্দ্ব শুরু হয় সেটে কস্টিউম নিয়ে। ঘটনার সূত্রপাত, যখন কারিনার ডিজাইনার কস্টিউমে বিপাশাকে সাহায্য করেন, এমনকি তা কারিনার আগে। আর এতেই রেগে কাঁই হন কারিনা। উত্তপ্ত বাক্যবিনিময় হয় দুজনের। বলা হয়ে থাকে, ওই সময় বিপাশাকে ‘কাল্লি বিল্লি’ বা কালো বিড়াল বলে ডেকেছিলেন কারিনা। যদি এ কথা সত্য হয়, তবে বর্ণবাদ প্রসঙ্গ নিশ্চয়ই উঠে আসবে!

প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, ওই মুহূর্তে বিপাশাকে আঘাত করে বসেছিলেন কারিনা কাপুর। বিপাশাকে চড় মারেন কারিনা। যদিও দুই অভিনেত্রীর কেউই ওই ঘটনার সত্যতা স্বীকার বা অস্বীকার কোনোটাই করেননি আজতক।

যা হোক, মনে হয় দুই অভিনেত্রীর সেই দিনগুলোর স্মৃতি সময়ের সঙ্গে সঙ্গে ফিকে হয়েছে। একবার সাইফ আলি খানের জন্মদিনে বিপাশাকে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন কারিনা। ধারণা করা যেতে পারে, ওই দিনগুলো এখন শুধুই অতীত।


বলিউড এর সর্বশেষ খবর

বলিউড - এর সব খবর