ঢাকা, শনিবার, ৩০ মে ২০২০, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

তাহসানের গল্প ভাবনায় মিমের চলচ্চিত্র

২০২০ মে ১৬ ২২:০১:০৭
তাহসানের গল্প ভাবনায় মিমের চলচ্চিত্র

একটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রের গল্পের আইডিয়া দিলেন সংগীতশিল্পী ও অভিনেতা তাহসান খান। আর সেই গল্প পর্দায় ফুটিয়ে তোলার সব ব্যবস্থা অর্থাৎ প্রযোজনা করলেন অভিনেত্রী বিদ্যা সিনহা মিম। চলচ্চিত্রটির নাম ‘কানেকশন’। শুধু তা–ই নয়, দুজনই নিজ নিজ ঘরে বসে

অভিনয়ও করেছেন চলচ্চিত্রটিতে। এটি পরিচালনা করেছেন রায়হান রাফি। চিত্রনাট্য লিখেছেন যৌথভাবে রায়হান রাফি ও মাসুদ উল হাসান। সংলাপ লিখেছেন বুলবুল মাসুদ। চলচ্চিত্রটি মিমের নিজের ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশিত হবে।

এ ব্যাপারে মিম বলেন, ‘করোনাভাইরাসের কারণে দীর্ঘদিন বাসায় আছি। মনে হলো নিজের ইউটিউব চ্যানেলের জন্য কিছু একটা করি। এই গল্পটি তাহসান ভাই প্রথমে প্রযোজক মাসুদ ভাইয়ের সঙ্গে আলোচনা করেছিলেন। এরপর আমি তাহসান ভাইয়ের সঙ্গে বিষয়টি আলোচনা করতে গিয়ে তাঁর গল্প ভাবনাটি পছন্দ হয়।’

তিনি আরও বলেন, ‘পরবর্তীকালে পরিচালক রায়হান রাফি ও মাসুদ ভাইয়ের সঙ্গে এ ব্যাপারে কথা বললে তাঁরা একবাক্যে কাজটি করে দিতে চাইলেন। শুধু তাই-ই না, মাসুদ ভাই তাঁর নিজের হাউস থেকে চলচ্চিত্রটির সম্পাদনার কাজেও সহযোগিতা করছেন। সবার প্রতি কৃতজ্ঞ আমি।’

গত মঙ্গল, বুধ ও বৃহস্পতিবার তিন দিন ধরে চলচ্চিত্রটির শুটিং হয়েছে। পরিবারের সদস্যদের সহযোগিতা নিয়ে মুঠোফোনের মাধ্যমে সবাই নিজ নিজ ঘরে বসেই শুটিং করেছেন।

পরিচালক রায়হান রাফি বলেন, ‘শুটিংয়ের আগে ভিডিও কলের মাধ্যমে লোকেশনে শিল্পীদের ফ্রেমগুলো বারবার ঠিক করতে হয়েছে। শুটিংয়ের পুরো সময়টাই শিল্পীদের সঙ্গে ভিডিও কলে ছিলাম। যাঁরা ক্যামেরা চালিয়েছেন তাঁরা তো অভিজ্ঞ না। তাই অনেকবার শট বাতিল হয়েছে। নতুন একটা অভিজ্ঞতা হলো, দেখা যাক কাজটি কেমন হয়।’

করোনাভাইরাসের দিনগুলোতে রোমান্টিক প্রেমের গল্প নিয়ে চলচ্চিত্রটির কাহিনি। স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রের গল্প ভাবনা তাহসানের জন্য প্রথম অভিজ্ঞতা। তিনি বলেন, ‘গত মার্চ মাসের প্রথমে শুটিং করেছি। এরপর থেকে ঘরে বসা। গান, কবিতা লিখছি কিন্তু এই দুর্যোগে সুর মাথায় আসছে না। বিরক্ত লাগছিল। ইচ্ছে হলো ঘরে বসেই শুটিং করি। প্রথমে গল্প ভাবলাম। গল্পটি নিয়ে প্রথমে মাসুদ ভাইয়ের সঙ্গে আলোচনা করি। পরে মিমের সঙ্গে আলোচনা করতে গিয়ে মিম তাঁর নিজের ইউটিউব চ্যানেলের জন্য কাজটি করতে আগ্রহী হন।’

এই গায়ক ও অভিনেতা জানান, টেলিভিশনের কাজের মানের সঙ্গে এই কাজের তুলনা করা যাবে না। তবে এর গল্পটা ভালো। তিনি বলেন, ‘মোবাইল ফোনে প্রযোজনীয় আলো ছাড়াই শুট হয়েছে। অনভিজ্ঞ ক্যামেরার হাত। তা ছাড়া অভিনয় বুঝিয়ে দেওয়ার মানুষও লোকেশনে ছিল না। পরিচালক ফোনে ফোনে যতটুকু করেছেন, এই যা। তবে ছবির গল্পটা দারুণ। ভালো লাগবে। এ ধরনের কাজ ইউটিউব চ্যানেলের জন্য ঠিক আছে।’

মিম জানান, এখন চলচ্চিত্রটির সম্পাদনার কাজ চলছে। ঈদের দিন বা ঈদের দু–এক দিন আগে তাঁর নিজের ইউটিউব চ্যানেল প্রকাশিত হবে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটি।


ঢালিউড এর সর্বশেষ খবর

ঢালিউড - এর সব খবর