ঢাকা, শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

করোনা মুখোশ খুলে দিয়েছে চীনের প্রেসিডেন্টয়ের

২০২০ মার্চ ৩১ ২০:১১:৩০
করোনা মুখোশ খুলে দিয়েছে  চীনের প্রেসিডেন্টয়ের

করোনাভাইরাসের মহামারীতে যখন বিপর্যস্ত পুরো বিশ্ব। ঠিক সেই সময়ে চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং এবং তার দলের ভাবমূর্তি ফেরাতে দলীয় প্রচারযন্ত্র মরিয়া হয়ে উঠেছে। তাতে মনে হয়েছে শুরু থেকে শি জিনপিং এর দায়িত্বকাল জুড়ে তিনি কোনও ভুল করেননি।

মিথ্যা সাজানো এই প্রচার-প্রচারণায় দেশীয় ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে সুবিধা পেয়েছেন তিনি। যা দেখে মনে হয়েছে চীনের উত্থান অপ্রতিরোধ্য এবং পুরোনো ঐতিহ্য ভেঙে আজীবনের জন্য ক্ষমতা শি জিনপিংয়ের হাতেই দিয়ে দেওয়া হয়েছে।

তবে এ বিষয়ে ক্যানবেরা ভিত্তিক চীনের পলিসি সেন্টারের পরিচালক অ্যাডাম নি ভিন্ন মত পোষণ করেছেন। তিনি জানান, করোনা সংকটে এত দিনের গড়া শি জিনপিং রাজত্বে ফাটল ধরেছে। চীনের জনস্বাস্থ্য বিভাগের দুর্বলতা ও রাষ্ট্রীয় প্রশাসনের অপারগতায় শি জিনপিং-এর সেই সুবিধাজনক অবস্থানকে অনেকটা নড়বড়ে করে দিয়েছে।

গত এক বছরে অনেকগুলো চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে হয়েছে চীনের প্রেসিডেন্টকে। যার মধ্যে ছিল অর্থনীতির ধরিগতি, তাইওয়ানের সাথে সম্পর্কের জটিলতা ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাথে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক তলানিতে ঠেকা। এর সাথে মহামারী করোনাভাইরাসসহ অন্যান্য চ্যালেঞ্জ ও ভুল শি জিনপিংকে সমালোচনার মুখোমুখি দাঁড় করায়। যার ফলে ২০১৯ সালের শুরু থেকে যে রাজনৈতিক ভীত চীনের প্রেসিডেন্ট গড়ে তুলেছিলেন, তা এ পর্যায়ে এসে প্রশ্নবিদ্ধ হয়েছে।

এখন নড়বড়ে পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে শি জিনপিং ও তার দল। তাদের ভিত্তিহীন অপপ্রচার মুখ থুবড়ে পড়েছে। এই মিথ্যা প্রচারযন্ত্রকে মাও সেতুংয়ের সময়ে বলা হতো মুুখের বাহাদুরি। কিন্তু আজকের বিশ্ব মিডিয়া ও পশ্চিমা অনলাইন প্লার্টফর্মের যুগে এসবের ভিত্তি নেই। চীনের কূটনীতিক, মন্ত্রীপরিষদ, বিভিন্ন পর্যায়ের মুখপাত্র ও তোষামোদকারীরা পদে পদে ব্যর্থতার পরিচয় দিচ্ছে।যার ফলে কোভিড-১৯ তথা করোনাভাইরাস সংকটে শি জিনপিংয়ের মুখোশ উন্মোচিত হয়েছে। উল্লেখ্য, চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বিশ্বব্যাপী আট লাখ ছাড়িয়েছে। মারণ এই ভাইরাসে প্রাণ গেছে ৩৯ হাজারেরও বেশি মানুষের।

সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া।


বহির্বিশ্ব এর সর্বশেষ খবর

বহির্বিশ্ব - এর সব খবর