ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৬ মে ২০২০, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

করোনার প্রভাবে বেতন কম নিতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে মেসিরা

২০২০ মার্চ ২৫ ২২:৫৪:১৮
করোনার প্রভাবে বেতন কম নিতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে মেসিরা

ক্রমেই আরও ভয়ঙ্কর হয়ে উঠছে করোনাভাইরাস। ইউরোপে এই মুহূর্তে মৃত্যুর মিছিল চলছে। গত এক দিনেই দুই হাজারেও বেশি মানুষ মারা গেছে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। ইউরোপের দেশগুলোর মধ্যে ইতালির পর এই মুহূর্তে স্পেনে করোনার প্রকোট বেশি।

বিজ্ঞাপন এখন পর্যন্ত স্পেনে প্রায় তিন হাজার মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়ে গেছে ৪২ হাজার। এসবের প্রভাব ভালোভাবেই পড়েছে স্পেনের ফুটবলে। ফুটবলের জন্য আলাদাভাবে পরিচিত দেশটিতে জনপ্রিয় স্প্যানিশ লা লিগাসহ সব ধরনের ফুটবল বন্ধ হয়েছে অনেক আগেই। চ্যাম্পিয়ন্স লিগ, ইউরোপা লিগও বন্ধ হয়েছে। বিষয়গুলো স্বাভাবিকভাবেই প্রভাব ফেলেছে ফুটবল অর্থনীতিতে। বিজ্ঞাপন করোনার কারণে সৃষ্টি অর্থনৈতিক টানপড়নের কারণে বড় বিপদে পড়েছে স্পেনের অন্যতম সেরা ক্লাব বার্সেলোনা।

লা লিগা, চ্যাম্পিয়ন্স লিগের মতো গুরুত্বপূর্ণ টুর্নামেন্টগুলোর ভাগ্য পুরোপুরি অনিশ্চিত। ফলে বড় ধরনের অর্থনৈতিক ক্ষতির মুখে পড়েছে কাতালান ক্লাবটি। শোনা যাচ্ছিল, এই ক্ষতি কিছুটা পুষিয়ে নিতে খেলোয়াড়দের ‘সহযোগিতা’ চাইছে বার্সেলোনা। ক্লাবের পক্ষ থেকে খেলোয়াড়দের বেতনের একটা অংশ ছাড় দেওয়ার প্রস্তাব দেওয়া হয়। তবে এই প্রস্তাবে ইতিবাচক ফল হয়তো আসছে না! মার্কার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বেতন কম নেওয়ার প্রস্তাবে বার্সেলোনার খেলোয়াড়রা সাড়া দিবেন বলে মনে হচ্ছে না। সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে অর্থনৈতিক উপদেষ্টাদের সঙ্গে কথা বলছেন বার্সার তারকারা। তাতে ইতিবাচক ফল আসার সম্ভাবনা কম।

এদিকে, অর্থনৈতিক বিষয়ে কঠিন সময়ই কাটাচ্ছে বার্সেলোনা। গত মৌসুমে খেলোয়াড় কিনতে ৬১ মিলিয়ন ইউরো খরচ হয়েছে কাতালান ক্লাবটির। খেলোয়াড়দের বেতন-ভাতায় গেছে প্রায় ৫০০ মিলিয়ন ইউরো আর ঋণ পরিশোধে খরচ হয়েছে আরও ১৩৫ মিলিয়ন ইউরো। ক্লাব পরিচালকরা প্রত্যাশা করছিলেন, এবারের মৌসুমে খরচের অংশটা তুলে আনা সম্ভব হবে। কিন্তু করোনায় ফুটবল থমকে যাওয়াতে সে সম্ভবনা এখন ক্ষীণ।


খেলাধুলা এর সর্বশেষ খবর

খেলাধুলা - এর সব খবর