ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ এপ্রিল ২০২০, ২৫ চৈত্র ১৪২৬

‘১৮ বছর বয়সে’ মামুনুর রশীদ

২০২০ ফেব্রুয়ারি ২৭ ১২:০৫:১৭
‘১৮ বছর বয়সে’ মামুনুর রশীদ

স্বাধীনতা-উত্তর বাংলাদেশের মঞ্চ আন্দোলনের পথিকৃৎ মামুনুর রশীদ। শ্রেণিসংগ্রাম, ক্ষুদ্র জাতিসত্তার অধিকার আদায়ের নানা আন্দোলনসহ বিভিন্ন সামাজিক ইস্যু নিয়ে নাটক লিখে ও নির্দেশনা দিয়ে বাংলাদেশের নাট্য জগতে মামুনুর রশীদ হয়ে উঠেছেন অপরিহার্য। চার বছর পরপর গুণী এই

শিল্পীর জন্মদিন উদ্​যাপনের সুযোগ আসে। কারণ ২৯ ফেব্রুয়ারি, অধিবর্ষে তাঁর জন্ম। সে হিসেবে ২৯ ফেব্রুয়ারি তাঁর ১৮তম জন্মদিন! এ উপলক্ষ্যে ‘দ্রোহ দাহ স্বপ্নের নাট্য আয়োজন’ শিরোনামে উৎসবের আয়োজন করেছে আরণ্যক নাট্যদল। এসব নিয়ে লিখেছেন মাসুম আলী এই সময়ে কোথায় নেই ইন্টারনেট? ইন্টারনেট নাকি মানুষকে দিয়েছে বেগ, কেড়ে নিয়েছে আবেগ।

আর এই ইন্টারনেট দুনিয়ায় ​​​এখন ফেসবুক জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম। ভার্চুয়াল জগতে মানবিক জীবন থেকে আবেগ, অনুভূতি ও ভালোবাসা কেড়ে নিয়ে মানুষকে পরিণত করেছে যন্ত্রমানবে। আঙুলের ছোঁয়ায় এই ভার্চুয়াল দুনিয়ায় অনেক কিছু পাওয়া যায়। তবে এখানে নিদারুণ এক অভাব— স্পর্শ। তেমনই এক স্পর্শহীন জীবনের গল্পের নাটক কহে ফেসবুক।

এর নাট্যকার মামুনুর রশীদ, যিনি লিখেছেন ওরা কদম আলী, ইবলিশ, রাষ্ট্র বনাম, এখানে নোঙর, রাঢ়াঙ, চে’র সাইকেল–এর মতো নাটক। নতুন নাটক নিয়ে কথা হয়েছিল নাট্যকার মামুনুর রশীদের সঙ্গে। এ প্রসঙ্গে তিনি বললেন, ‘বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে নাট্য রচনার দিক থেকে আমি কতটা এগিয়েছি, তার একটি প্রমাণ মিলবে এ নাটকে।’ কাজপাগল, নাটকপাগল এই মানুষ কতটা কাজপাগল, কতটা নাটকপাগল সাম্প্রতিক একটি ঘটনায় তার প্রমাণ মেলে। হঠাৎ করেই ভীষণ অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন। ভর্তি হতে হয়েছিল হাসপাতালে।

১০ দিন বিছানায় কেটেছে। হাসপাতাল থেকে ফিরেই পরদিন দুর্বল শরীর নিয়ে চলে যান নতুন নাটক কহে ফেসবুক–এর মহড়ায়। এরপর প্রতিদিন নির্দেশক এবং অভিনেতা হিসেবে মহড়ায় অংশ নিয়েছেন। অংশ নিয়েছেন কারিগরি মঞ্চায়নে।

গুণী এ মানুষকে নিয়ে তাঁর সময়ের বা পরের প্রজন্মের নাটকের মানুষদের মূল্যায়ন কী? তাঁর কাজ নিয়ে কী ভাবছেন তাঁরা? রামেন্দু মজুমদার বলেন, ‘ওরা কদম আলী থেকে শুরু করে তাঁর প্রায় সব নাটকেই মামুনুর রশীদের যে পরিচয় আমাদের সামনে বড় হয়ে দেখা দেয়, তা হচ্ছে তাঁর সমাজসচেতনতা।

শোষিত, বঞ্চিত মানুষের হাসি-কান্না নিয়ে তাঁর নাটক, শোষকের মুখোশ উন্মোচন এবং পরিশেষে বঞ্চিতেরা জোট বাঁধলেই যে সমাধান সম্ভব তার ইঙ্গিত।’ আজাদ আবুল কালাম বলেন, ‘মামুন ভাই যে অভিনয় করেন তার চেয়ে ভালো নির্দেশনা দেন, নির্দেশনার চেয়ে ভালো লেখেন।

লেখা, অভিনয়, নির্দেশনার চেয়ে মামুন ভাই অনেক বেশি বোঝেন। এই বুঝই তাঁকে সবার থেকে আলাদা করেছে।’ মাসুম রেজা বলেন, ‘রচনাশৈলী, নাটক রচনার বিষয় নির্বাচন, সমসাময়িকতা, সামাজিক দায়বোধ ও অনিয়মের প্রতিবাদ—সবকিছু মিলেমিশে মামুনুর রশীদের নাটক বাংলা ভাষার নাট্যকারদের ভেতরে এক অনন্য উচ্চতায় প্রতিষ্ঠিত।’ গেল কয়েক দিন শিল্পকলা একাডেমিতে যে আয়োজন ঘিরে চঞ্চল পরিবেশ দেখা গেল, সেটি মামুনুর রশীদের ১৮তম জন্মদিনের। আসছে ২৯ ফেব্রুয়ারি তাঁর ১৮তম জন্মদিন।

হ্যাঁ, বয়স ৭২ হলেও জন্মদিন ১৮তম। ‘দ্রোহ দাহ স্বপ্নের নাট্য আয়োজনের’ আহ্বায়ক এস এম হারুন-অর-রশীদ বলেন, ‘অধিবর্ষে জন্মগ্রহণ করা এই প্রথিতযশা নাট্যকার, অভিনেতা ও নির্দেশকের জন্মদিন পালন করার সুযোগ আমরা চার বছর অন্তর অন্তর পেয়ে থাকি।

তাই এই প্রতীক্ষিত জন্মদিন বড় পরিসরে পালন করছি।’ যেসব আয়োজন থাকছে আজ বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে চারটায় বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির নন্দন মঞ্চে উৎসবের উদ্বোধন হবে। এরপর শোভাযাত্রা, অতিথিরা চলে যাবেন জাতীয় নৃত্যশালা মিলনায়তনে। সেখানে প্রদীপ জ্বালিয়ে আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন। কাল শুক্রবার সকাল ১০টায় থাকবে সেমিনার।

মূল বক্তা শমীক বন্দ্যোপাধ্যায়। বেলা সাড়ে তিনটায় ‘যেভাবে বেড়ে উঠি’ শিরোনামে বক্তব্য দেবেন মামুনুর রশীদ। সন্ধ্যায় জাতীয় নাট্যশালায় পার্বতীপুরের ইয়াংস্টার থিয়েটার মঞ্চায়ন করবে রাষ্ট্র বনাম নাটক। পরীক্ষণ থিয়েটার হলে আরণ্যক নাট্যদল মঞ্চায়ন করবে রাঢ়াঙ। ২৯ ফেব্রুয়ারি সকাল সাড়ে ১০টায় স্টুডিও থিয়েটারে বাংলাদেশ অভিনয়শিল্পী সংঘের সম্মিলনী ও শুভেচ্ছা নিবেদন। বিকেল সাড়ে চারটায় সেমিনার হলে থাকছে আলোচনা সভা।

সন্ধ্যা ছয়টায় জাতীয় নাট্যশালায় মামুনুর রশীদকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জ্ঞাপন। এদিন সন্ধ্যা সোয়া সাতটায় নাট্যশালায় মামুনুর রশীদের রচনা ও নির্দেশনায় আরণ্যক নাট্যদলের নতুন প্রযোজনা কহে ফেসবুক-এর উদ্বোধনী প্রদর্শনী হবে। ২ মার্চ জাতীয় নাট্যশালায় মঞ্চায়িত হবে চে’র সাইকেল।

৩ মার্চ জাতীয় নাট্যশালায় মামুনুর রশীদের রচনা ও নির্দেশনায় সঙক্রান্তি নাটকের প্রদর্শনীর মধ্য দিয়ে উৎসবের সমাপনী হবে।


সঙ্গীত এর সর্বশেষ খবর

সঙ্গীত - এর সব খবর