ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ২ কার্তিক ১৪২৬

শিক্ষকতা ছেড়ে রাধূনির বেশে তনিমা

২০১৯ অক্টোবর ০৫ ১৪:১৯:১১
শিক্ষকতা ছেড়ে রাধূনির বেশে তনিমা

তনিমা হামিদ। অভিনয়শিল্পী। দীর্ঘ বিরতির পর 'নানা স্বাদে রাঁধুনী'র উপস্থাপনা নিয়ে টিভিতে হাজির হচ্ছেন তিনি। মঞ্চে তিনি ব্যস্ত নাট্যচক্রের 'আ ওমেন অ্যালোন' একক নাটকে অভিনয় নিয়ে। উপস্থাপনা ও অন্যান্য প্রসঙ্গে কথা হলো তার সঙ্গে-

পাঁচ বছর পর আবারও ছোট পর্দায় ফিরলেন। তাও অভিনয়ে নয় রান্নার অনুষ্ঠান উপস্থাপনা নিয়ে। হঠাৎ এমন অনুষ্ঠানে আগ্রহী হলেন ...

পাঁচ বছর ধরে আমি একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষকতা করছি। সেখানে অনেক বেশি সময় দেওয়ায় টিভি নাটকে অভিনয় থেকে দূরে ছিলাম। কয়েক মাস আগে যখন 'নানা স্বাদে রাঁধুনী'র অনুষ্ঠানের কথা শুনলাম, তখন মনে হলো এটা করা যায়। কারণ এখানে শুধু রেসিপি কিংবা রান্না দেখানো হবে তা নয়, দেশি খাবারের পাশাপাশি বিভিন্ন দেশের ঐতিহ্যবাহী খাবারও উপস্থাপন করা হবে। দেশের প্রখ্যাত শেফরা তাদের বিভিন্ন রেসিপি নিয়ে হাজির হবেন প্রতি পর্বে। এ ছাড়া থাকবে কুকিং টিপস, রান্নাঘর ব্যবস্থাপনা, কাটিং প্রসেসের খুঁটিনাটি। ফলে বলা যেতে পারে, এটি গৎবাঁধা রান্নার অনুষ্ঠান নয়।

টিভি নাটকে আবারও দেখা যাবে আপনাকে?

টিভি নাটকে অভিনয়ে আমার কখনও আপত্তি ছিল না। কিন্তু এখন যেসব গল্পের নাটকে অভিনয়ের জন্য আমার কাছে প্রস্তাব আসে, তার প্রায় সবইএকই ধরনের। তাই আর মন ছোট পর্দায় অভিনয়ে মন টানে না। মঞ্চ আমার জীবন। মঞ্চে নিয়মিত অভিনয় করছি।

সম্প্রতি সৈয়দ মহিদুল ইসলাম 'মঞ্চ বন্ধু'সম্মাননা পেয়েছেন। এটাই তো মঞ্চে আপনার প্রথম সম্মাননা ...

এক কথায় অসাধারণ। প্রথমবার সম্মাননা প্রাপ্তির আনন্দ বলে বোঝানো যাবে না। অভিনয়ে শুদ্ধতম স্থান মঞ্চ। প্রত্যেকটি মানুষেরই কাজের বিশেষ দুর্বল জায়গা থাকে। মঞ্চই আমার সেরকম একটা জায়গা। মঞ্চ থেকে সম্মাননা পাওয়া আমার জন্য বড় ব্যাপার।

এই সময়ে মঞ্চের সার্বিক পরিস্থিতি কেমন বলে মনে করেন?

মঞ্চনাটক নিয়ে আমি ভীষণ আশাবাদী। মঞ্চে প্রতিনিয়ত নিরীক্ষাধর্মী কাজ হচ্ছে। তরুণ প্রজন্মের মধ্যে থিয়েটারের প্রতি আগ্রহ বেড়েছে। এর পরও কিছু সীমাবদ্ধতার সম্মুখীন হতে হয় আমাদের। থিয়েটারের প্রধান প্রতিবন্ধকতা হলো হল সংকট ও ট্রাফিক জ্যাম। যেমন উত্তরা কিংবা মিরপুরে মঞ্চনাটক দেখার কোনো ব্যবস্থা নেই।


সাক্ষাৎকার এর সর্বশেষ খবর

সাক্ষাৎকার - এর সব খবর