ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২২ আগস্ট ২০১৯, ৭ ভাদ্র ১৪২৬

জীবনের বড় একটি স্বপ্ন পূর্ণ হলো অভিনেত্রী তারিনের

২০১৯ আগস্ট ০১ ০০:২৯:২৯
জীবনের বড় একটি স্বপ্ন পূর্ণ হলো অভিনেত্রী তারিনের

ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী তারিন। দীর্ঘদিন ধরেই মডেলিং, অভিনয়, নাচে, গানে দর্শকদে মুগ্ধ করে চলেছেন তিনি। নানামুখী প্রতিভার অধিকারী তারিন প্রায়ই নতুন নতুন চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকদের চমকে দেন। সেই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার (৩০ জুলাই) রাজধানীর উত্তরা বিশেষ একটি টেলিছবির শুটিংয়ে অংশ নিয়েছেন তিনি। এই টেলিছবিটি শুধু তারিনের ভক্তদের জন্যই বিশেষ নয়, এই অভিনেত্রী নিজের ক্যারিয়ারের জন্যও বিশেষ হয়ে থাকবে।

তারিন জানালেন ‘জলছবি’ নামের এই টেলিছবিতে অভিনয় করেতে গিয়ে তার জীবনের বড় একটি স্বপ্ন পূর্ণ হলো। কী সেই স্বপ্ন, শোনা যাক জনপ্রিয় অভিনেত্রীর মুখ থেকেই।

তারিন জাহান বলেন, ‘আমার জীবনের সেরা একটি স্বপ্ন পূরণ হয়েছে এই টেলিফিল্মে কাজ করে। কারণ এই টেলিছবি আমাকে দারুণ একটি সুযোগ করে দিয়েছে। ছোটবেলা থেকেই যেসব গুণী শিল্পীদের দেখে আমি ও আমার সমবয়সীরা বড় হয়েছি, যাদের অভিনয়ের ভক্ত ছিলাম এবং সব সময় স্বপ্ন দেখেছি কোনো একদিন হয়তো তাদের সঙ্গে অভিনয় করার সুযোগ হবে, তাদের অন্যতম একজন আসাদুজ্জামান নূর আঙ্কেল।

এতো বছর পরে এলো সেই সোভাগ্যের দিন। এই প্রথমবারের মতো নূর আঙ্কেলের সঙ্গে অভিনয় করলাম। সেটাও তার বিপরীতে। আমরা মঙ্গলবার শুটিং করেছি একসঙ্গে। তার কাছ থেকে অনেক কিছু শিখেছি। অনেকে ইনন্সপায়ার হয়েছি। তার সঙ্গে অভিনয়ের স্বপ্নটা পূরণ হলো। আমার ভালোলাগার জায়গাটা বলে বোঝানো সম্ভব না।’

তারিন আরও বলেন, ‘নূর আঙ্কেল আমাদের একজন শ্রদ্ধাভাজন মানুষ। তাকে আমরা একজন শিল্পী হিসেবে, দেশের সনামধন্য নাগরিক ও রাজনৈতিক নেতা হিসেবে দেখেছি। উনি যখন যেখানে ছিলেন সবখানেই সফলতার সঙ্গে কাজ করে গেছেন। এর আগেও নূর আঙ্কেলের সঙ্গে নাটকের অফার এসেছে। কিন্তু কেনো যেন হয়নি।

এবার যখন নির্মাতা হাসান রেজাউল এই নাটকটিতে অভিনয়ের জন্য ফোন করলেন, আমি স্ক্রিপ্টও দেখতে চাইনি। বলেছি, কবে শুটিং শুরু করবেন বলেন। যদি একটি দৃশ্যের জন্যও হয় আমি নূর আঙ্কেলের সঙ্গে অভিনয় করবো। কারণ এটা আমার স্বপ্ন ছিলো।’

এই টেলিছবিতে একজন কবির চরিত্রে অভিনয় করেছেন আসাদুজ্জামান নূর। তারিন তার চরিত্রটি প্রসঙ্গে বলেন, ‘এখানে আমার চরিত্রটির নাম নিতি। মেয়েটি খুব সাধারণ পরিবারের একটি মেয়ে। সে ভীষণ কবিতা ভালোবাসে। কবিতা আবৃত্তি করতে ভালোবাসে। তার একজন প্রিয় কবি আছে। যার প্রত্যেকটা কবিতা তার মুখস্ত।

সেই রকম একজন স্বপ্নের মানুষ যাকে সে কল্পনা করে, যাকে সে রেসপেক্ট করে, তার কবিতা পড়ে সে মুগ্ধ হয়, তার প্রতি ভালোলাগা আছে। এই মানুষটির সঙ্গে যখন সে কাজ করার সুযোগ পায়, ভালোলাগার বিষয়টি বেড়ে দ্বিগুণ হয়ে যায়। এই নাটকের চরিত্রটি এমনই। বাকিটা দর্শক টেলিছবিতেই দেখবেন।’

‘জলছবি’র টিমের প্রশংসা করে তারিন বললেন, ‘পুরো টিমটাকেই আমার অনেক পজেটিভ মনে হয়েছে। হাসান রেজাউলের পরিচালনায় আগে অভিনয় করেছি। ভালো নির্মান করে সে। আর শুভাশিস সিনহার স্ক্রিপ্টে প্রথম অভিনয় করলাম। তার সম্পর্কে আগেও শুনেছি। আমি মনে করি, যে কোন কাজ করতে গেলেই একটা ভালো টিম প্রয়োজন হয়।

সবাই যতি সঠিক ভাবে কাজটি করে তাহলে সেটা অনেক ভালো হয়। আশা করি আসছে ঈদুল আযহায় এনটিভির পর্দায় দর্শকরা উপভোগ করবেন আমাদের টেলিছবিটি।’


নাটক এর সর্বশেষ খবর

নাটক - এর সব খবর