ঢাকা, রবিবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮, ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

যৌ'ন হেনস্তা নিয়ে এবার মুখ খুললেন মিথিলা

২০১৮ নভেম্বর ০৭ ১৯:০৪:৩৭
যৌ'ন হেনস্তা নিয়ে এবার মুখ খুললেন মিথিলা

কর্মক্ষেত্রে নারী নির্যাতন, যৌন হেনস্তা ও বৈষম্য নিয়ে বর্তমানে সোচ্চার গোটা বিশ্ব। এসব ইস্যু নিয়ে হলিউডের পরে বলিউডে ওঠে #মিটু আন্দোলনের ঝড়। যে ঝড়ে এখনও টালমাটাল ভারতীয় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি। চলতি বছরের শুরুতে সেই ঝড়ের বাতাস লাগে বাংলাদেশের শোবিজ জগতেও। সে সময় নাম প্রকাশ না করে এক প্রযোজকের বিরুদ্ধে কাস্টিং কাউচের অভিযোগ তোলেন অভিনেত্রী ফারিয়া শাহরিন।

সম্প্রতি দেশের প্রথমসারির একটি ইংরেজি দৈনিককে দেয়া সাক্ষাতকারে সেই বিষয় নিয়েই কথা বললেন অভিনেত্রী ও উন্নয়নকর্মী রাফিয়াথ রশিদ মিথিলা। তার মতে, শুধু বিনোদন জগতে নয়, যৌন হেনস্তা ও লিঙ্গ বৈষম্য সব মাধ্যমেই রয়েছে। তবে গত এক বছর ধরে এই চিত্রটা মিডিয়া জগতেই সবচেয়ে বেশি দেখা যাচ্ছে। আমাদের সচেতনার অভাবেই সেই মাত্রাটা আরও প্রকট হচ্ছে।’

মিথিলা বলেন, ‘হলিউড, বলিউডসহ বিভিন্ন ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির নারী নির্যাতন ও যৌন হেনস্তার নানা ঘটনা #মিটু আন্দোলনের মাধ্যমে সামনে এসেছে। প্রতিদিন আরও অনেক ঘটনাই প্রকাশ পাচ্ছে। অনেক নারীই সাহস করে তাদের সঙ্গে বিভিন্ন সময়ে ঘটে যাওয়া নানা বাজে অভিজ্ঞতার কথা প্রকাশ করছেন। ইন্ডাস্ট্রির অন্য নারীরাও এগিয়ে এসে তাদেরকে সমর্থন দিচ্ছেন। এটা একটা ভালো দিক।’

বর্তমানে ব্র্যাক ইন্টারন্যাশানালের আর্লি চাইল্ডহুড ডেভেলপমেন্টের প্রধান হিসাবে কর্মরত আছেন মিথিলা। একজন উন্নয়নকর্মী তিনি মনে করছেন, এই সমস্যার মেঘ খুব শিগগিরই কেটে যাবে। অভিনেত্রীর কথায়, ‘আমার সংস্থাটি লিঙ্গ বৈষম্য এবং শিশুদের সুরক্ষা নিয়ে কাজ করে। আরও বহু উন্নয়নমূলক সংস্থাই এই সমস্যা সমাধানে কাজ করে যাচ্ছে। যার ফলে বর্তমানে বেশ ইতিবাচক পরিবর্তনও দেখা যাচ্ছে।’

মিথিলার কর্মজীবন শুরু হয়েছিল একজন পেশাদার উন্নয়নকর্মী হিসাবে। শিক্ষাজীবন শেষে তিনি গবেষক হিসেবে ব্র্যাকে যোগ দেন। এরপর আমেরিকায় গিয়ে বছরখানেক মিনিয়াপোলিস পাবলিক স্কুল ডিস্ট্রিক্টে কাজ করেন। বাংলাদেশে ফিরে স্কলাস্টিকা হাই স্কুলে কাজ শুরু করেন। নর্দান বিশ্ববিদ্যালয়ের লেকচারার হিসাবেও কাজ করেছেন তিনি। পাশাপাশি অভিনয়, নাচ এবং গানেও তার ব্যাপক জনপ্রিয়তা রয়েছে।


নাটক এর সর্বশেষ খবর

নাটক - এর সব খবর