ঢাকা, মঙ্গলবার, ২১ নভেম্বর ২০১৭, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৪

শাকিবের ‘প্রিয়তমা’ বুবলী

২০১৭ নভেম্বর ১৪ ২২:৪৫:০৬
শাকিবের ‘প্রিয়তমা’ বুবলী

চিত্রনায়ক শাকিব খানের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান এসকে ফিল্মস থেকে তিন বছর পর ছবি তৈরি হবে। ছবির নাম ‘প্রিয়তমা’। এই সিনেমায় শাকিবের বিপরীতে নায়িকা কে হচ্ছেন? এই প্রশ্ন ছিল অনেকের মনে। গতকাল সোমবার রাতে সঙ্গে আলাপে বুবলী জানান, ‘প্রিয়তমা’ সিনেমায় নায়িকা তিনি। নতুন এই সিনেমাসহ অন্যান্য প্রসঙ্গে কথা হয় তাঁর সঙ্গে।

আপনার সহশিল্পী শাকিব খান দেশের বাইরে। এখন কী করছেন?
কদিন আগে আমি একাই ‘চিটাগাইঙ্গা পোয়া নোয়াখাইল্যা মাইয়া’ সিনেমার এক দিনের শুটিং করেছি। আর সুপারস্টার (শাকিব খান) যেহেতু দেশের বাইরে আছেন, তাই তিনি দেশে ফেরার পর বাকি শিডিউল ঠিক করা হবে।

‘প্রিয়তমা’ সিনেমায় অভিনয়ের ব্যাপারে কোনো আলাপ হয়েছে?
হ্যাঁ। আজ থেকে ছয় মাস আগে পরিচালক হিমেল আশরাফ গল্প শুনিয়েছিলেন। পরিচালক চেয়েছিলেন, সুপারস্টার আর আমাকে নিয়েই সিনেমাটা করবেন। এদিকে সুপারস্টার অন্য সিনেমার শুটিং নিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়লেন, তাই এই সিনেমা নিয়ে কথা বলার মতো সময় পাচ্ছিলেন না। কিছুদিন আগে ‘চিটাগাইঙ্গা পোয়া নোয়াখাইল্যা মাইয়া’ সিনেমার শুটিংয়ের ফাঁকে ‘প্রিয়তমা’ নিয়ে অনেক আলাপ হয়। সেখানে পরিচালক সুপারস্টারকে গল্প শোনান। গল্প শোনার পর তাঁর ভীষণ পছন্দ হয়। আর সঙ্গে সঙ্গে বললেন, এই সিনেমা তিনিই নিজের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকেই বানাবেন।

এরপর?
এরপর তো প্রযোজক, পরিচালক, সুপারস্টার আর আমিসহ সবাই মিলে মিটিং করে ‘প্রিয়তমা’ সিনেমার কাজের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করি। আমাদের সুপারস্টারের সঙ্গে পর্দা ভাগাভাগি করাটা যেকোনো নায়িকার জন্য অনেক বড় পাওয়া। আর সেখানে যদি তাঁর প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকে নির্মিত সিনেমায় কাজ করার সুযোগ পাওয়া যায়, তাহলে তা নিঃসন্দেহে সৌভাগ্যের। আশা করছি, কাজটি আমার জন্য মাইলফলক হবে।

শাকিব খান ও বুবলী
অভিনয়ের ব্যাপারে আলোচনা চূড়ান্ত হয়েছে?
লিখিতভাবে সব চূড়ান্ত করেছি। আর সামনে কিন্তু আরেকটা চমকও থাকছে।

কী সেই চমক?
আমি শুরু থেকে এত দিন যে কয়টি সিনেমায় অভিনয় করেছি, সবগুলোর নায়ক শাকিব খান। এবার সব ঠিক থাকলে নতুন নায়কের সঙ্গে সিনেমায় অভিনয় করব। প্রাথমিক কথা হয়েছে।

এই সিনেমায় শাকিব খান থাকবেন?
এখনো যেহেতু চূড়ান্ত কিছু হয়নি, তাই শাকিব খানের ব্যাপারটা বলতে পারছি না।

পড়াশোনার খবর বলুন।
সিনেমার কাজের ফাঁকে পড়াশোনা চলছে। যদিও দুইটা একসঙ্গে চালানো কঠিন হয়ে যায়, তারপরও পড়াশোনা তো করতেই হবে। কারণ, ছোটবেলা থেকেই আমার পরিবার পড়াশোনার ব্যাপারে খুব কঠোর। আমি এখন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে এমবিএ করছি।

পড়াশোনা শেষে চাকরি করবেন, নাকি সিনেমা নিয়েই থাকবেন?
আপাতত সিনেমা নিয়েই ভাবছি। অন্য কিছু নিয়ে এ মুহূর্তে ভাবতে চাই না।

উপরে