ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৩ নভেম্বর ২০১৭, ৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৪

মায়ের সঙ্গে থাকার অনুমতি মিলল শ্বেতার

২০১৪ অক্টোবর ৩১ ২২:৫৬:৩১
মায়ের সঙ্গে থাকার অনুমতি মিলল শ্বেতার

পতিতাবৃত্তিতে জড়িত থাকার অভিযোগে গ্রেপ্তার জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেত্রী শ্বেতা বসুকে পুনর্বাসন কেন্দ্রে

পাঠানো হয়েছে। সেখানে তাকে তার মায়ের সঙ্গে থাকার অনুমতিও দিয়েছেন একটি আদালত।
শ্বেতা বসু গত ৩০ সেপ্টেম্বর একটি নিম্ন আদালতের আদেশ চ্যালেঞ্জ করে তার মা আপিল করেছিলেন। বুধবার হায়দ্রাবাদের ওই আদালত তা মঞ্জুর করেছেন। এর ফলে আগামী ৬ মাস মায়ের সঙ্গেই থাকতে পারবেন শ্বেতা।

সেপ্টেম্বর প্রথম সপ্তাহে দেহ ব্যবসায় জড়িত থাকার অভিযোগে জনপ্রিয় তেলেগু অভিনেত্রী শ্বেতা বসু প্রসাদকে গ্রেপ্তার করে হায়দ্রাবাদ পুলিশ। সেসময় হায়দ্রাবাদের বাঞ্জারা হিলসের একটি পাঁচ তারকা হোটেলে অভিযান চালিয়ে শ্বেতাসহ তেলেগু ফিল্ম জগতের বেশ কিছু নামিদামি শিল্পপতিকেও হেফাজতে নেয় পুলিশ।

এর আগেও ছবিতে গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র পাওয়ার জন্য সমঝোতার উদ্দেশ্যে আপত্তিকর অবস্থায় ধরা পড়েন শ্বেতা। পরে অবশ্য নিজের এই কীর্তির কথা স্বীকার করেছিলেন তিনি।

উল্লেখ্য, টলিউডের অভিনেত্রী হলেও শ্বেতার উত্থান কিন্তু হিন্দি টেলিভিশন ও বলিউডের হাত ধরেই। একতা কাপুরের জনপ্রিয় সিরিয়াল ‘কাহানি ঘর ঘর কি’-তে মূল চরিত্র ওম ও পার্বতীর মেয়ে শ্রুতির চরিত্রে শিশুঅভিনেত্রী শ্বেতা অভিনয় করেছিলেন।

বিশাল ভরদ্বাজের মকড়ি ছবিতে চুন্নি-মুন্নির দ্বৈত ভূমিকায় অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ শিশুশিল্পী হিসাবে জাতীয় পুরস্কার পেয়েছিলেন।

উপরে