ঢাকা, বুধবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৭, ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৪

সেক্স সিম্বল জ্যাকুলিন খানমহলে!

২০১৪ জুলাই ২৪ ১৬:০৫:৫৯
সেক্স সিম্বল জ্যাকুলিন খানমহলে!

জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজের খুঁড়িয়ে চলা ক্যারিয়ারের পালে হাওয়া লাগল সালমান খানের কল্যাণে। প্রথমবারের মতো 'খান' পদবির কারো বিপরীতে নায়িকা হলেন।

কাল মুক্তি পাবে সালমান-জ্যাকুলিনের 'কিক'। উচ্ছল, চঞ্চলা, মায়াবতী, ডানা ঝাপটানো কোনো প্রজাপতির খোঁজে হন্যে হয়ে ঘুরছিলেন পরিচালক-প্রযোজক সাজিদ নাদিয়াদওয়ালা।

সালমান খানের বিপরীতে যেনতেন কাউকে তো আর নায়িকা করা যায় না। হালের কাউকেই মনে ধরছিল না। শেষতক জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজকেই পছন্দ করলেন। কিন্তু বলিউড নায়িকারা যখন 'সাইজ জিরো' করতে উঠেপড়ে লেগেছেন, তখন এই লঙ্কান সুন্দরী ছবির জন্য পুরো পাঁচ কেজি ওজন বাড়িয়ে ফেললেন! দো-ধারি তলোয়ারের মতো ৫ ফুট ৭ ইঞ্চি উচ্চতার এই অভিনেত্রী সহজেই মানিয়ে নিলেন কলেজপড়ুয়া চরিত্রের সঙ্গে।

১২০ কোটি রুপি বাজেটের সিনেমাটি নিয়ে বলিউড অঙ্গনে উচ্ছ্বাসের কমতি নেই। তবে সব উচ্ছ্বাস আর কৌতূহলের কারণ সালমান খান হলেও কিকই জ্যাকুলিনের ক্যারিয়ার রাঙিয়ে তুলবে বলে বিশ্বাস সিনেমা বোদ্ধাদের। মুদ্রার উল্টো পিঠে থাকারা আবার ভিন্ন আশঙ্কাও করছেন।

'সালমানের খ্যাতির নিচে জ্যাকুলিন চাপা পড়বেন না তো? কিকের জ্যাকুলিন নাকি জ্যাকুলিনের কিক?' 'অবশ্যই না। সাইড লাইনে বসে ক্ষণ গোনার দিন ফুরিয়েছে। ভক্তরা নতুন জ্যাকুলিনকেই পাবে'- জ্যাকুলিনের সাফ জবাব। প্রথমবারের মতো সালমানের সঙ্গে কাজের প্রশংসাও ঝরে পড়ল তাঁর কণ্ঠে, 'সালমানের বিপরীতে অভিনয় করা সত্যি অন্য রকম অভিজ্ঞতা।

এখন পর্যন্ত আমার ক্যারিয়ারের সেরা অভিনেতা সালমানই।' সালমানও যেন ঘুরিয়ে-ফিরিয়ে একই কথা বলতে চাইলেন। জ্যাকুলিনকে তুলনা করলেন জিনাত আমানের সঙ্গে। স্মৃতিমেদুর জ্যাকুলিন ছয় বছর আগের কথা ভুলে যাননি হয়তো। বলিউডে প্রথম যখন আসেন, জ্যাকুলিন ছিলেন স্রোতহীন নদীর মতো একা, নিঃসঙ্গ। কে কাজ দেবে, কার কাছে যাবে; বলিউডের সব অলি-গলিই যে অচেনা। তবে এসবে দমে যাননি জ্যাকুলিন। দাঁতে দাঁত চেপে, শক্ত চোয়ালে অপেক্ষা করেছেন সময়ের।

২০১১ সালে মার্ডার-২-এর সাফল্যের পর জ্যাকুলিনের খুঁড়িয়ে চলা ক্যারিয়ারের পালে মৃদু হাওয়া লাগে। নতুন চিত্রনাট্য হাতে পরিচালকরা জ্যাকুলিনের কড়া নাড়তে শুরু করেন। তবে খানিকটা রয়েসয়েই এগোতে চাইলেন তিনি। তাই কৌশলে 'না' করে দেন 'রাজ-৩'-এর মতো সিনেমাও। জ্যাকুলিনের মাথায় তখন অন্য চিন্তা- 'মার্ডার-২-এর মতো চিত্রনাট্যে আর নয়; অভিনেত্রী হতে চাই। সেক্স সিম্বল নয়।'

ক্যারিয়ারের শুরুতেই ২০০৯-এ 'আলাদিন'-এ পেয়েছিলেন সঞ্জয়, অমিতাভের মতো অভিনেতার সান্নিধ্য। এবার তো আলাদিনের চেরাগই পেলেন! সালমানকে তো আলাদিনের চেরাগ বলাই যায়। তাঁর ওপর সওয়ার হয়ে কত নায়িকাই তো ওপরে উঠে গেলেন। এবার কি জ্যাকুলিনের পালা? তবে কঠোর পরিশ্রম ছাড়া সালমানের দাওয়াও যে কাজে আসে না, সেটির উদাহরণও তো বলিউডে অহরহ!

বলিউড এর সর্বশেষ খবর

বলিউড - এর সব খবর

উপরে